মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪

সুইডেনে পবিত্র কুরআনে অগ্নিসংযোগের ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ খেলাফত মজলিসের

সুইডেনে আল-কুরআনের অবমাননার মধ্য দিয়ে বিশে^র দেড়শ’ কোটি মুসলমানর হৃদয়ে আঘাত হানা হয়েছে – খেলাফত মজলিস

ঢাকা, ৩০ জুন ২০২৩: সুইডেনে সালওয়া মোমিকা নামক এক পাপিষ্ট কর্তৃক পবিত্র ঈদুল আজহার দিন স্টকহোমের কেন্দ্রীয় মসজিদের সামনে পবিত্র কুরআনে কপিতে অগ্নিসংযোগের ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন খেলাফত মজলিসের ভারপ্রাপ্ত আমীর মাওলানা আবদুল বাছিত আজাদ ও মহাসচিব ড: আহমদ আবদুল কাদের। আজ প্রদত্ত এক যৌথ বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় বলেন, পবিত্র ঈদুর আজহার দিন সুইডেনে স্টকহোমের কেন্দ্রীয় মসজিদের সামনে মহাগ্রন্থ আল-কুরআনের অবমাননার মধ্য দিয়ে বিশে^র দেড়শ’ কোটি মুসলমানর হৃদয়ে আঘাত হানা হয়েছে। এ জন্য দোষী ব্যক্তিকে অবশ্যই দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। অন্য ধর্মের মানুষের হৃদয়ে আঘাত প্রদান কোনভাবেই মতপ্রকাশের স্বাধীনতা হতে পারে না। সুইডেনের যে আদালত ঐ পাপিষ্ঠ বক্তিকে কুরআন অবমানার মত ঘুণ্য কাজের অনুমতি দেয়েছে তাদের কর্মকান্ডও অত্যন্ত নিন্দনীয়। এর আগেও সুইডেনে ইসলাম ও কুরআন অবমাননার ঘটনা ঘটেছে। সুইডনে বারবার পবিত্র কুরআনের অবমাননা কোন ভাবেই বরদাস্ত করা যায় না। সুইডেন সরকার যদি পবিত্র কুরআন- ইসলাম বিদ্বেষী কর্মকান্ড বন্ধ করতে না পারলে সুইডেনকে কঠিন মূল্য দিতে হবে।
বিবৃতিতে নেতৃতদ্বয় অবিলম্বে কুরআন অবমাননাকারী পাপিষ্ঠ সালওয়া মোমিককে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে এবং সুইডেন সরকারকে বিশ^ মুসলিমের কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। নতুবা মুসলিম বিশ্ব সুইডেনকে বয়কট করতে বাধ্য হবে। বিবৃতি

আরো পড়ুন ...