Home Archives
Monthly Archives

January 2022

বেকসুর খালাস ৭ জন

বহুল আলোচিত সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত্যা মামলার রায় ঘোষণা করেছেন আদালত। রায়ে টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার, বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের তৎকালীন পরিদর্শক লিয়াকত আলীকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়েছে।
এছাড়া এসআই নন্দ দুলাল রক্ষিত, কনস্টেবল সাগর দেব, রুবেল শর্মা, পুলিশের সোর্স নুরুল আমিন, নিজাম উদ্দিন ও আয়াজ উদ্দীনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেন আদালত।
অন্যদিকে মামলা থেকে এপিবিএনের এসআই শাহজাহান আলী, কনস্টেবল মো. রাজীব, মো. আব্দুল্লাহ, পুলিশের কনস্টেবল সাফানুল করিম, কামাল হোসেন, লিটন মিয়া ও পুলিশের কনস্টেবল আব্দুল্লাহ আল মামুনকে খালাস দেয়া হয়।
আজ ৩১ জানুয়ারি এ রায় ঘোষণা করেন কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোহাম্মদ ইসমাইল। রায়ের পর্যবেক্ষণে এই হত্যাকাণ্ডকে পূর্বপরিকল্পিত বলে আখ্যায়িত করেছেন বিচারক। এর আগে দুপুর ২টার দিকে ওসি প্রদীপসহ মামলার ১৫ আসামিকে প্রিজন ভ্যানে করে কক্সবাজার কারাগার থেকে আদালতে আনা হয়। এরপর তাদের আদালতের এজলাসে তোলা হয়। বেলা আড়াইটার দিকে আলোচিত এই মামলার ৩০০ পৃষ্ঠার রায় পড়া শুরু করেন বিচারক।

রায় ঘোষণার সময় সিনহার বোন, মামলার বাদী শারমিন শাহরিয়া ফেরদৌস ও তার স্বামী আদালতের এজলাসে উপস্থিত ছিলেন।
এদিকে রায়কে ঘিরে কক্সবাজার জেলা আদালত এলাকায় কঠোর নিরাপত্তা বলয় গড়ে তোলা হয়। আদালতের ফটকসহ সবদিকে চার স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়। গত বছর ২৭শে জুন আনুষ্ঠানিকভাবে মামলাটির বিচারকাজ শুরু হয়। দীর্ঘ শুনানি, সাক্ষীদের জবানবন্দি, জেরা ও আইনজীবীদের যুক্তিতর্ক শেষে রায়ের তারিখ ধার্য করেন আদালত।
আলোচিত এই মামলায় বাদী ও মামলার তদন্ত কর্মকর্তাসহ সাক্ষী ছিলেন ৮৩ জন। এর মধ্যে প্রথম দফায় গত ২৩ থেকে ২৫শে আগস্ট পর্যন্ত তিনদিনে মামলার বাদী ও সিনহার বড় বোন শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌস এবং ২ নম্বর সাক্ষী ঘটনার সময় সিনহার সঙ্গে গাড়িতে থাকা সাহেদুল ইসলাম সিফাত সাক্ষ্য দেন।
দ্বিতীয় দফায় চারদিনে সাক্ষ্য নেয়া হয় চারজনের, তৃতীয় দফায় তিনদিনে আটজনের, চতুর্থ দফায় দুই দিনে ছয়জনের, পঞ্চম দফায় তিনদিনে ১৫ জনের, ষষ্ঠ দফার তিনদিনে ২৪ জনের, সপ্তম দফার তিনদিনে পাঁচজনের এবং অষ্টম দফায় তিনদিনে তদন্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ খায়রুল ইসলামের সাক্ষ্য দিয়ে ৬৫ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষ করা হয়।
এরপর আদালত নবম দফায় ৬ ও ৭ই ডিসেম্বর ১৫ জন আসামির ৩৪২ ধারায় লিখিত ও মৌখিক সাফাই সাক্ষ্যগ্রহণ করেন। এ মামলার বাদী শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌস, তদন্ত কর্মকর্তা ও র‌্যাব-১৫-এর জ্যেষ্ঠ সহকারী পুলিশ সুপার খাইরুল ইসলামসহ ৬৫ জন সাক্ষী আদালতে সাক্ষ্য দেন। এর মধ্যে প্রত্যক্ষদর্শী ও তদন্ত কর্মকর্তা এ হত্যাকাণ্ডকে পরিকল্পিত বলে আদালতকে জানান।
এ মামলার বাইরেও সাক্ষীরা ওসি প্রদীপ কুমার দাশের দায়িত্ব পালনকালে টেকনাফে নানা নির্যাতনের বর্ণনা দেন আদালতে।
সূত্র মতে, প্রদীপ কুমার দাশ টেকনাফ থানায় ওসি থাকাকালে মাদক নির্মূলের নামে ২২ মাসে ১৪৪টি বন্দুকযুদ্ধের ঘটনার জন্ম দেন। তাতে মারা গেছেন ২০৪ জন। নিহতদের সবাইকে দেয়া হয়েছে মাদক ও অস্ত্র উদ্ধারের তকমা। অথচ সাধারণ মানুষ বলছেন, ক্রসফায়ারে নিহতদের বেশির ভাগ ছিল নিরীহ। টেকনাফের হ্নীলা ইউনিয়নের সন্ত্রাসী তকমা দিয়ে একই পরিবারের তিন ভাইকে নির্মমভাবে হত্যা করার অভিযোগ আছে প্রদীপের বিরুদ্ধে।
প্রসঙ্গত, ২০২০ সালের ৩১শে জুলাই কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কের বাহারছড়া শাপলাপুর পুলিশের তল্লাশি চৌকিতে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান। এ ঘটনায় নিহত সিনহার বোন শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌস বাদী হয়ে বাহারছড়া পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের তৎকালীন ফাঁড়ির ইনচার্জ লিয়াকত আলী ও টেকনাফ থানার ওসি প্রদীপ কুমার দাশসহ ৯ পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেন। মামলাটি তদন্তের পর র‍্যাব-১৫-এর জ্যেষ্ঠ সহকারী পুলিশ সুপার মোহাম্মদ খায়রুল ইসলাম একই বছরের ১৩ই ডিসেম্বর ১৫ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেন। অভিযোগপত্রে সিনহা হত্যাকাণ্ডকে একটি ‘পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড’ হিসেবে উল্লেখ করা হয়। আমাদের সময় ডটকম

0 comment
0 FacebookTwitterPinterestEmail

বাংলাদেশে ১২ বছরের বেশি বয়সী সবাইকে করোনা ভাইরাসের টিকা দেয়া হবে। আর ৪০ বছরের উপরের নাগরিকদেরও করোনা ভাইরাসের টিকার বুস্টার ডোজ দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক।
আজ রোববার মহাখালীর বাংলাদেশ কলেজ অব ফিজিশিয়ান্স অ্যান্ড সার্জনস মিলনাতনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।
জাহিদ মালেক বলেন, ১২ বছরের বেশি বয়সীরা অন্যদের মত নিবন্ধন করবেন। নিবন্ধন না করলেও জন্মনিবন্ধন কার্ড নিয়ে কেন্দ্রে গেলে টিকা নিতে পারবে।
আমরা এখন ১২ বছর বয়স থেকে শিক্ষার্থীদের টিকা দিচ্ছি। এখন এটা সবার জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হলো।
স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, এখন থেকে ৪০ বছরের উপরের নাগরিকদেরও করোনা ভাইরাসের টিকার বুস্টার ডোজ দেয়া হবে। এটা আজই উন্মুক্ত করে দেয়া হলো।
আমরা ষাটোর্ধ নাগরিকদের টিকার বুস্টার ডোজ দেয়া শুরু করেছি। পরে ৫০ বছরে কমিয়ে আনার পরও দেখা গেছে খুব বেশি মানুষকে বুস্টার ডোজের আওতায় আনা যাচ্ছে না। এ কারণে বয়সসীমা আরও কমিয়ে এনেছি।

আমাদের হাতে বুস্টার ডোজ দেয়ার মতো পর্যাপ্ত টিকা আছে।

0 comment
0 FacebookTwitterPinterestEmail

আন্তর্জাতিক বাজারে তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাসের (এলএনজি) দাম অস্বাভাবিক হারে বেড়ে গেছে। ফলে এক বছরের কম সময়ের ব্যবধানে তিন গুণ বেশি দামে এক কার্গো বা ৩৩ লাখ ৬০ হাজার এমএমবিটিইউ এলএনজি আমদানি করা হচ্ছে। নিউজিল্যান্ডের একটি প্রতিষ্ঠান থেকে এই গ্যাস আমদানিতে ব্যয় হবে এক হাজার সাত কোটি টাকা।

জানা গেছে, গেল জুন মাসে আন্তর্জাতিক বাজারে প্রতি এমএমবিটিইউ এলএনজির দাম ছিল ১০ ডলারের কাছাকাছি। এখন তাতে ব্যয় করতে হচ্ছে প্রায় ৩০ মার্কিন ডলার। এলএনজি আমদানির প্রস্তাবটি অনুমোদনের জন্য অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠেয় সরকারি ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির আজ রোববার বৈঠকে উপস্থাপন করা হতে পারে।

জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগ সূত্র জানিয়েছে, দেশে ক্রমবর্ধমান গ্যাসের চাহিদা পূরণের জন্য কাতার গ্যাস ও ওমান ট্রেডিং ইন্টারন্যাশনালের (ওকিউটি) সাথে দু’টি দীর্ঘমেয়াদি চুক্তির মাধ্যমে এলএনজি আমদানির পাশাপাশি স্পট মার্কেট থেকেও এলএনজি কেনা হচ্ছে। স্পট মার্কেট থেকে এলএনজি কেনার লক্ষ্যে যথাযথ প্রক্রিয়া অনুসরণ করে মাস্টার সেল অ্যান্ড পারচেজ অ্যাগ্রিমেন্ট (এমএসপিএ) প্রস্তুত করে আইন ও সংসদ বিষয়ক বিভাগের ভেটিং নেয়া হয় এবং সে এমএসপিএটি চূড়ান্তও করা হয়েছে। পরবর্তীতে অর্থনৈতিক বিষয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির নীতিগত অনুমোদনের ভিত্তিতে পেট্রোবাংলা এমএসপিএ অনুস্বাক্ষরকারী ১৬টি প্রতিষ্ঠানের সাথে চূড়ান্ত করা এমএসপিএ স্বাক্ষর করা হয়।
সূত্র জানায়, দেশের নিরবচ্ছিন্ন গ্যাস সরবরাহের লক্ষ্যে স্পট মার্কেট থেকে ২০২১ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে ২ কার্গো এলএনজি সংগ্রহের জন্য বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী (প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা) নীতিগত অনুমোদন দেন।

সূত্র মতে, ২০২২ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে স্পট মার্কেট থেকে কমপক্ষে ১ (এক) কার্গো এলএনজি সংগ্রহ করা প্রয়োজন। চলতি মাসের ১৩ তারিখে আরপিজিসিএল থেকে এমএসপিএ স্বাক্ষরকারী ১৬টি প্রতিষ্ঠানের কাছে ২০২২ সালের জন্য স্পট ভিত্তিতে ১ (এক) কার্গো এলএনজি সরবরাহের দরপ্রস্তাব আহ্বান করে ই-মেইল পাঠানো হয়। দরপত্র পাঠানোর শেষ সময় ছিল ২০২২ সালের ২৩ জানুয়ারি।

সূত্র জানায়, এ সময়ের মধ্যে কম দরপ্রস্তাব দাখিলকারী তিনটি প্রতিষ্ঠানের নাম উল্লেখ করে দরপত্র মূল্যায়ন কমিটির কাছে প্রতিবেদন পাঠানো হয়। কমিটি প্রাপ্ত দরপত্রগুলো কারিগরি ও আর্থিকভাবে মূল্যায়ন করে। এর পর সেই সুপারিশসংবলিত একটি প্রতিবেদন প্রস্তাব প্রক্রিয়াকরণ কমিটির (পিপিসি) কাছে দাখিল করে। ওই প্রতিবেদন থেকে দেখা যায় তিন কোম্পানির মধ্যে সুইজারল্যান্ড ভিত্তিক টোটাল এনার্জিস গ্যাস অ্যান্ড পাওয়ার লিমিটেড প্রতি এমএমবিটিইউর দাম ২৯.৭৭০০ ডলার উল্লেখ করে সর্বনিম্ন দরদাতা হয়েছে। অন্য দু’টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে সিঙ্গাপুরের ভাইটল এশিয়া প্রাইভেট লিমিটেড ৩৪.৯৯২১ ডলার এবং সুইজারল্যান্ডের এওটি ট্রেডিং এজি নন-রেসপন্সিভ হয়।

এ অবস্থায় প্রস্তাব প্রক্রিয়াকরণ কমিটির ২৪ জানুয়ারি তারিখের সভায় দরপ্রস্তাব মূল্যায়ন কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী সর্বনিম্ন দরপ্রস্তাবকারী প্রতিষ্ঠান টোটাল এনার্জিস গ্যাস অ্যান্ড পাওয়ার লিমিটেডের প্রস্তাবিত একক দর (২৯.৭৭০০ ডলার/ এমএমবিটিইউ) গ্রহণ এবং ব্যয়িতব্য টাকায় ক্রয় প্রস্তাব সরকারি ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটিতে পাঠানোর সুপারিশ করেছে।

জ্বালানি বিভাগ সূত্র জানায়, এই এলএনজি ক্রয়ে কোভিড-১৯-এর জন্য সরাসরি অথবা কুরিয়ার সার্ভিসের মাধ্যমে দরপ্রস্তাব গ্রহণ না করে এলএনজি স্পট পারচেজ (এলএসপি) সফটওয়্যারের মাধ্যমে দরপত্র গ্রহণ করা হচ্ছে। ২০২২ সালে স্পট মার্কেট থেকে কার্গো গ্রহণের জন্য এর আগে এই সফটওয়্যারের প্রথম দরপ্রস্তাব আহ্বান করা হয়। সেই প্রাপ্ত দরপ্রস্তাবগুলো কারিগরি ও আর্থিকভাবে নন-রেসপন্সিভ হওয়ায় ২০২২ সালের জানুয়ারি মাসের জন্য অনুমোদিত ১ (এক) কার্গো এলএনজি আমদানি করা সম্ভব হয়নি।

প্রসঙ্গত, ২০২১ সালে স্পট মার্কেট থেকে কার্গো গ্রহণের জন্য ওই সফটওয়্যারের মাধ্যমে ২১টি দরপ্রস্তাব আহ্বান করা হয়। তার মধ্যে ১৬ কার্গো এলএনজি সংগ্রহের জন্য সরকারি ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির অনুমোদন নেয়া হয়েছে। নয়া দিগন্ত

0 comment
0 FacebookTwitterPinterestEmail

চলতি মাসে সপ্তম দফায় ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা করেছে উত্তর কোরিয়া। ধারণা করা হচ্ছে, নতুন এই পরীক্ষা ২০১৭ সালের পর দেশটির বৃহত্তম ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা।

রোববার স্থানীয় সময় সকাল ৭টা ৫২ মিনিটে এই পরীক্ষা করা হয় বলে জানায় দক্ষিণ কোরিয়ার সম্মিলিত বাহিনীর প্রধানদের কমিটি জয়েন্ট চিফস অব স্টাফ।

জাপানের মন্ত্রিসভার চিফ সেক্রেটারি হিরোকাজু মাতসুনো এক টেলিভিশন ভাষণে জানান, নিক্ষিপ্ত রকেটটি দুই হাজার কিলোমিটার উঁচু দিয়ে ৩০ মিনিটে উড়ে আট শ’ কিলোমিটার দূরত্ব পাড়ি দিয়েছে।

দক্ষিণ কোরিয়ার পক্ষ থেকেও একই ধরণের উচ্চতা ও দূরত্বের হিসাব জানানো হয়।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, প্রাপ্ত তথ্য অনুসারে নিক্ষিপ্ত ক্ষেপণাস্ত্রটি দীর্ঘপাল্লার ইন্টারমেডিয়েট রেঞ্জের ব্যালিস্টিক মিসাইল (আইআরবিএম) বলে ধারণা করা হচ্ছে। সর্বশেষ ২০১৭ সালে এই ধরনের ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষামূলক উৎক্ষেপণ করে উত্তর কোরিয়া।

যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক থিংক ট্যাংক কার্নেজ এনডওম্যান্ট ফর ইন্টারন্যাশনাল পিসের কর্মরত নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞ অঙ্কিত পান্ডা এক টুইট বার্তায় বলেন, ‘২০১৭ সালের নভেম্বরের পর এটিই বৃহত্তম মিসাইল পরীক্ষা।’জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া ও যুক্তরাষ্ট্র উত্তর কোরিয়ার নতুন এই ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণের নিন্দা জানিয়েছে।

জাতিসঙ্ঘ উত্তর কোরিয়ার ব্যালিস্টিক ও পরমাণু অস্ত্র পরীক্ষার ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়ে রাখলেও পূর্ব এশিয়ার দেশটি প্রায়ই এই নিষেধাজ্ঞা ভেঙে আসছে।

উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন দেশটির সামরিক বাহিনীর সামর্থ্য বাড়ানোর জন্য এবং এর অস্ত্রভাণ্ডার আধুনিকায়নের জন্য অঙ্গীকার করেছেন।

পরমাণু শক্তিধর উত্তর কোরিয়া নতুন এই পরীক্ষা এমন সময় করলো যখন প্রতিবেশী চীনের বেইজিংয়ে শীতকালীন অলিম্পিক শুরু হওয়ার প্রস্তুতি চলছে। অপরদিকে উত্তর কোরিয়ার সাবেক নেতা ও বর্তমান নেতার বাবা কিম জং ইলের ৮০তম জন্মবার্ষিকী পালনের প্রস্তুতি নিচ্ছে পিয়ংইয়ং।

জানুয়ারিতে উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণের জেরে দেশটিতে নতুন আরো নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সময় যুক্তরাষ্ট্র ও উত্তর কোরিয়ার মধ্যে শান্তি আলোচনা শুরু হয়েছিলো। কিন্তু গত বছর জো বাইডেনের দায়িত্ব গ্রহণের পর থেকেই তা স্থবির হয়ে পড়ে।

সূত্র : আলজাজিরা ও বিবিসি

0 comment
0 FacebookTwitterPinterestEmail

বগুড়ার শেরপুরে বাস ও সিএনজি চালিত অটোরিকশা সংঘর্ষে পাঁচজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন অন্তত পক্ষে আরো দশজন। দুর্ঘটনায় নিহতরা সিএনজির যাত্রী ছিলেন। এছাড়া আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

তাৎক্ষণিকভাবে দুর্ঘটনায় হতাহতদের নাম- পরিচয় জানা সম্ভব হয়নি।

বুধবার (২৬ জানুয়ারি) বিকেল ৫টার দিকে উপজেলার মির্জাপুর ইউনিয়নের মির্জাপুর আমবাগান নামক স্থানে ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

শেরপুর ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স কর্মকর্তা নাদের হোসেন এই তথ্য নিশ্চিত করে জানান, বগুড়াগামী হানিফ পরিবহনের একটি বাস ঢাকা মহাসড়কের মির্জাপুর আমবাগান নামক স্থানে বিপরীত দিক থেকে আসা সিএনজি চালিত অটোরিকশার মধ্যে সামনা সামনি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই সিএনজির পাঁচজন যাত্রী নিহত হন। একই সাথে বাস ও সিএনজি আরো দশজন যাত্রী গুরুতর আহত হয়েছেন। তাদেরকে দ্রুত উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। নিহতদের মধ্যে একজন নারী ও চারজন পুরুষ রয়েছেন। এছাড়া তাদের সবার বয়স ২৫ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে বলেও জানান তিনি।

শেরপুর হাইওয়ে পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ বানিউল আনাম জানান, দুর্ঘটনায় নিহত ও আহতদের নাম-পরিচয় জানান চেষ্টা চলছে। এছাড়া দুর্ঘটনার পরপরই বাসের চালক-হেলপার পালিয়ে যাওয়ায় তাদের আটক করা সম্ভব হয়নি। তবে বাস ও অটোরিকশাটি জব্দ করা হয়েছে।

0 comment
0 FacebookTwitterPinterestEmail

বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার-২০২১ ঘোষণা করা হয়েছে। রোববার বাংলা একাডেমির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, বাংলা একাডেমি নির্বাহী পরিষদের অনুমোদনক্রমে রোববার ‘বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার ২০২১’ ঘোষণা করা হয়। অমর একুশে বইমেলার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আনুষ্ঠানিকভাবে এ পুরস্কার প্রদান করবেন।

বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার ২০২১ প্রাপ্তরা হলেন-

বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার ২০২১ প্রাপ্তরা হলেন- আসাদ মান্নান, বিমল গুহ (কবিতা), ঝর্না রহমান, বিশ্বজিৎ চৌধুরী (কথাসাহিত্য), হোসেনউদ্দীন হোসেন (প্রবন্ধ/গবেষণা), আমিনুর রহমান, রফিক-উম-মুনীর চৌধুরী (অনুবাদ), সাধনা আহমেদ (নাটক), রফিকুর রশীদ (শিশুসাহিত্য), পান্না কায়সার (মুক্তিযুদ্ধ-ভিত্তিক গবেষণা), হারুন-অর-রশিদ (বঙ্গবন্ধু-বিষয়ক গবেষণা), শুভাগত চৌধুরী (বিজ্ঞান/কল্পবিজ্ঞান/পরিবেশ বিজ্ঞান), সুফিয়া খাতুন, হায়দার আকবর খান রনো (আত্মজীবনী/স্মৃতিকথা/ভ্রমণকাহিনি) ও আমিনুর রহমান সুলতান (ফোকলোর)। যুগান্তর

0 comment
0 FacebookTwitterPinterestEmail

নির্বাচন কমিশন (ইসি) গঠন সংক্রান্ত খসড়া আইন জাতীয় সংসদে বিল আকারে উত্থাপন করা হয়েছে। রোববার বেলা ১১টার দিকে একাদশ জাতীয় সংসদের ১৬তম অধিবেশনে এই বিল উত্থাপন করেন আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রী অ্যাডভোকেট আনিসুল হক।

বিলটি উত্থাপনের পর অধিকতর পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য তার মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটিতেই বিলটি পাঠানো হবে।

এর আগে গত ১৭ জানুয়ারি ‘প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও নির্বাচন কমিশনার নিয়োগ আইন, ২০২২’-এর খসড়া নীতিগত ও চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

পাঁচ দিন বিরতির পর আজ বেলা ১১টায় একাদশ জাতীয় সংসদের ১৬তম অধিবেশন আবার শুরু হয়। স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী এতে সভাপতিত্ব করছেন।

ওই দিন মন্ত্রিপরিষদ সচিব জানিয়েছিলেন, প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও নির্বাচন কমিশনার নিয়োগের জন্য রাষ্ট্রপতির কাছে সুপারিশ দিতে একটি সার্চ কমিটি (অনুসন্ধান কমিটি) গঠনের কথা বলা হয়েছে আইনে। এই সার্চ কমিটিব হবে ছয় সদস্যের। কমিটিকে সাচিবিক সহায়তা দেবে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। সার্চ কমিটি যোগ্য প্রার্থীদের নাম সুপারিশের পর সেখান থেকে রাষ্ট্রপতি নির্বাচন কমিশনারদের নিয়োগ দেবেন।

সংবিধানের ১১৮ (১) অনুচ্ছেদ অনুযায়ী প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) এবং নির্বাচন কমিশনার (ইসি) নিয়োগের জন্য বিলটি আনা হচ্ছে। কেএম নূরুল হুদার নেতৃত্বাধীন বর্তমান ইসির মেয়াদ শেষ হচ্ছে আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি। তার আগেই রাষ্ট্রপতিকে নতুন কমিশন গঠন করতে হবে। সেক্ষেত্রে আইনটি জাতীয় সংসদে উত্থাপন ও পাস করে গেজেট আকারে প্রকাশের জন্য হাতে চার সপ্তাহ সময় রয়েছে।

সংসদের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, সংসদীয় কমিটির রিপোর্টের জন্য বিলটির সময় খুব কম দেওয়া হবে এবং যত দ্রুত সম্ভব বিলটি পাস করা হবে। এটি পাস হওয়ার পরে নতুন নির্বাচন কমিশন আইনের আলোকে সিইসি ও ইসি নিয়োগ করা হবে।

0 comment
0 FacebookTwitterPinterestEmail

আইসিসির বর্ষসেরা ক্রিকেটার হিসাবে স্বীকৃতি পেয়েছেন পাকিস্তানের মোহাম্মদ রিজওয়ান। ২০২১ সালের টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটার অব দ্য ইয়ার নির্বাচিত হয়েছেন পাকিস্তানের এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান।

২০২১ সালে টি-টোয়েন্টিতে ২৯টি ম্যাচের ২৬ ইনিংসে ব্যাটিং করে ৭৩.৬৬ গড়ে এক সেঞ্চুরি ও ১২ হাফ সেঞ্চুরিতে করেছেন ১ হাজার ৩২৬ রান। গত বছর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও ছিলেন ধারাবাহিকতার মূর্ত প্রতীক। বিশ্বকাপে প্রথম ম্যাচে রিজওয়ানের ৫৫ বলে ৭৯ রানের দুর্দান্ত এক ইনিংস খেলার পথে বিশ্বকাপে ভারতকে প্রথমবার হারিয়েছিল পাকিস্তান।

বিশ্বকাপে শুধু ব্যাট হাতে আলো ছড়াননি, অদম্য মানসিকতার পরিচয়ও দিয়েছিলেন রিজওয়ান। সেমিফাইনালের আগে বুকে ব্যথা নিয়ে ছিলেন হাসপাতালে ভর্তি। সেই অবস্থায় তিনি ডাক্তারকে জানিয়েছিলেন, ‘আমি সেমিফাইনাল খেলতে চাই।’ শেষ পর্যন্ত খেলেছেনও অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সেমিফাইনালে। দল জিততে না পারলেও রিজওয়ান করেছিলেন হাফ সেঞ্চুরি।

গত বছর রিজওয়ানের শুরুটাও ছিল দুর্দান্ত। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ঘরের মাঠে বছরের প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচেই করেছিলেন সেঞ্চুরি। পরের ম্যাচে করেছিলেন ৫১। এরপর দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজেও ব্যাটে রানের ফোয়ারা ছুটিয়েছিলেন। বছরজুড়েই টি-টোয়েন্টি সংস্করণে বোলারদের ঘাম ছুটিয়েছেন রিজওয়ান। এক পঞ্জিকাবর্ষে টি-টোয়েন্টিতে সর্বোচ্চ রান, হাফ সেঞ্চুরি, সবচেয়ে বেশি বল খেলা, বাউন্ডারি—সবকিছুতেই ছিলেন এক নম্বরে। দারুণ সব কীর্তি গড়ার পর টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটার অব দ্য ইয়ার নির্বাচিত হয়ে সেসবের স্বীকৃতি পেলেন রিজওয়ান।

0 comment
0 FacebookTwitterPinterestEmail